রবিবার, ২১ জুলাই ২০১৯


ডিসেম্বরে ঢাকার দুই সিটি নির্বাচন





অন লাইন ডেস্কঃ

আগামী ডিসেম্বরে হতে যাচ্ছে ঢাকা দক্ষিণ ও উত্তর সিটি করপোরেশনের ভোট। স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয় চলতি মাসেই এ-সংক্রান্ত প্রস্তাব নির্বাচন কমিশনে পাঠাতে পারে। সে ক্ষেত্রে আগামী অক্টোবর বা নভেম্বরের শুরুতে নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করা হতে পারে।

সরকার ও নির্বাচন কমিশনের উচ্চপর্যায়ের একাধিক সূত্র বিষয়টি নিশ্চিত করেছে। ২০১৫ সালের ২৮ এপ্রিল প্রথমবারের মতো ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটিতে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়।

এরপর দুই মেয়র ওই বছর ৬ মে শপথ গ্রহণ করেন। সে অনুযায়ী আগামী বছরের মে মাসে মেয়াদ শেষ হবে মেয়রের। স্থানীয় সরকার (সিটি করপোরেশন) আইন অনুযায়ী, পাঁচ বছর মেয়াদ পূর্ণ হওয়ার ১৮০ দিন আগে ভোট করতে হবে।

আগামী ২০২০-২০২১ সালকে মুজিববর্ষ হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে। আগামী বছরের ১৭ মার্চ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী।

সরকার ও দলের হাইকমান্ড চায়, জাতির পিতার জন্মশতবার্ষিকী পালনে ঢাকার দুই সিটি ব্যাপকভাবে সম্পৃক্ত থাকুন।

এ জন্য ডিসেম্বর মাসকেই ভোটের জন্য উপযুক্ত সময় মনে করা হচ্ছে। কারণ ২ ফেব্রুয়ারি থেকে এসএসসি, ১ এপ্রিল থেকে এইচএসসি পরীক্ষা শুরু হবে। অন্যদিকে মার্চে জাতির পিতার জন্মশতবার্ষিকীর ব্যাপক কর্মসূচি থাকবে। সে কারণেই ডিসেম্বরে নির্বাচন অনুষ্ঠানের প্রস্তুতি চলছে। মে মাস থেকে শুরু হবে রমজান।

আওয়ামী লীগের একাধিক সূত্র জানিয়েছে, ঢাকায় এবার দুই সিটিতে দলীয় সম্ভাব্য প্রার্থীদের ব্যাপারে খোঁজখবর নেওয়া হচ্ছে। দেশের সবচেয়ে জনবহুল এই সিটি ভোটে অভিজ্ঞদের প্রতি আস্থা রাখতে পারেন দলীয় সভানেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সুত্রঃ বাংলাদেশ প্রতিদিন।

এ প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আবদুর রহমান বলেন, ‘২০২০-২০২১ সালকে মুজিববর্ষ হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে। আগামী বছরের ১৭ মার্চ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী। মুজিববর্ষ আমরা ব্যাপকভাবে পালন করতে চাই।

আমরা চাই দেশের সব মানুষ ব্যাপকভাবে পালন করুক। বিশেষ করে রাজধানীতে ব্যাপক কর্মসূচি হাতে নেওয়া হবে। এ জন্য দলের পাশাপাশি দুই সিটি করপোরেশনকে পাশে চাই।’ ডিসেম্বরের সিটি করপোরেশনে ভোট প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ২ ফেব্রুয়ারি থেকে এসএসসি, ১ এপ্রিল থেকে এইচএসসি পরীক্ষা শুরু হবে। মার্চে জাতির পিতার জন্মশতবার্ষিকী।

সে কারণে ডিসেম্বরে ভোট করার উপযুক্ত সময় হিসেবে মনে করছি। তবে সব সিদ্ধান্ত নির্বাচন কমিশনের। তফসিল ঘোষণা হলে আমরা নির্বাচনের জন্য প্রস্তুত।’

নাম প্রকাশ না করার শর্তে স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের একজন উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা জানিয়েছেন, ‘আগামী ডিসেম্বরে ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটির ভোট করা যেতে পারে- এমন একটি প্রস্তাব নির্বাচন কমিশনে পাঠানোর প্রস্তুতি চলছে।’

কবে নাগাদ পাঠানো হবে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘সময় হলেই জানতে পারবেন।’

রাজধানীবাসীর সেবার মান বৃদ্ধির লক্ষ্যে ২০১১ সালের ২৯ নভেম্বর ঢাকা সিটি করপোরেশনকে উত্তর-দক্ষিণ দুই ভাগে ভাগ করা হয়। এর প্রায় ৪ বছর পর দুই সিটিতে নির্বাচন হয়।

সেই নির্বাচনে আওয়ামী লীগ সমর্থিত দুই মেয়র আনিসুল হক ও মোহাম্মদ সাঈদ খোকন বিজয়ী হয়ে দায়িত্ব গ্রহণ করেন। লন্ডনের ওয়েলিংটন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ২০১৭ সালের ৩০ নভেম্বর মারা যান ঢাকা উত্তর সিটির মেয়র আনিসুল হক।

চলতি বছরের ২৮ ফেব্রুয়ারি ঢাকা উত্তর সিটির উপনির্বাচনে আওয়ামী লীগ প্রার্থী হিসেবে অনেকটা ফাঁকা মাঠে মেয়র পদে বিজয়ী হন ব্যবসায়ী নেতা মো. আতিকুল ইসলাম। গত ৭ মার্চ প্রধানমন্ত্রীর কাছে শপথ নেন আতিকুল ইসলাম।



প্রকাশক ও সম্পাদক : শাহিন রহমান

অফিস : ১১৪ নাখালপাড়া, ঢাকা-১২১৫
Email : prothomshomoy@gmail.com